বাংলাদেশীদের ভিসা ছাড়া প্রবেশের অনুমতি আছে যে দেশ গুলোতে

বাংলাদেশীদের ভিসা ছাড়া প্রবেশের অনুমতি আছে যে দেশ গুলোতে

বিশ্বের অধিকাংশ দেশে ভ্রমণের ক্ষেত্রে বাংলাদেশের নাগরিকদের জন্য ভিসা বাধ্যতামূলক। তবে ৪১ টি দেশে ভিসা ছাড়া প্রবেশ অথবা অন এরাইভাল ভিসা সুবিধা পান বাংলাদেশীরা। ভ্রমণ পিয়াসী মানুষেরা প্রকৃতির রূপ পরিগ্রহ করার জন্য ছুটে বেড়ান এক দেশ থেকে অন্য দেশে। অনেকেরই ভ্রমণ আনন্দ মাটি হয়ে যায় ভিসা সংক্রান্ত জটিলতায় পড়ে। অনেকেই জানেননা যে ভিসা ছাড়া ও অনেক দেশ ভ্রমণ করা যায়। আবার অনেক দেশেই অনএরাইভাল ভিসা পাওয়া যায়। আসুন জেনে নেই সেই দেশগুলোর সম্পর্কে:- ভুটান :…

Read More

ই-টোকেন লাগবেনা ভারত ভ্রমণে

ই-টোকেন লাগবেনা ভারত ভ্রমণে

ভারতে যাওয়ার নিশ্চিত টিকিটের (বিমান/সড়ক/রেল) বিপরীতে বাংলাদেশি পর্যটকদের ই-টোকেন লাগবে না । তাঁরা কোন ধরনের অ্যাপয়েন্টমেন্ট ছাড়াই সরাসরি “ট্যুরিস্ট ভিসার” জন্য আপনিও আবেদন করতে পারেন । ঢাকার মিরপুরের ভিসা অ্যাপ্লিকেশন সেন্টারের (আইভিএসি) পাশা-পাশি রাজশাহী, রংপুর, সিলেট, চট্রগাম, খুলনা, যশোর, ময়মনসিংহ ও বরিশাল শাখায় ট্যুরিস্ট ভিসার আবেদন পত্র জমা দেওয়া যাবে। ভারতীয় হাইকমিশনের একটি সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে আজ রোববার এ তথ্য জানানো হয়েছে। বর্তমানে ঢাকার মিরপুর আইভিএসিতে এটি কার্যকর আছে । আগামী ১ ফেব্রুয়ারী থেকে ঢাকার বাইরের…

Read More

স্বল্প খরচে বাংলাদেশী নেবে কানাডা, সপরিবারে স্থায়ী বসবাসের সুযোগ ! যেভাবে আবেদন করবেন

স্বল্প খরচে বাংলাদেশী নেবে কানাডা, সপরিবারে স্থায়ী বসবাসের সুযোগ ! যেভাবে আবেদন করবেন

২০১৬-১৭ সালে ৩ লাখ ৫ হাজার পেশাজীবী কানাডায় ইমিগ্রেশনের সুযোগ পাচ্ছেন। দেশটির ১১টি প্রদেশে- High Skills, ট্রেড স্কিলড, ফ্যামেলি স্পন্সরশিপ, বিজনেস, এক্সপ্রেস এন্ট্রি, পিএনপি, এফএসডব্লিউ, সেল্ফ অ্যাম্প্লয়েডসহ ১১টি ক্যাটাগরিতে ইমিগ্রেশনের ঘোষণা দিয়েছে কানাডিয়ান সরকার। শুধু কানাডার কুইবেক প্রদেশেই ১০ (দশ) হাজার পেশাজীবী ইমিগ্রেশন করার সুযোগ পাবেন। এক্ষেত্রে ট্রেড স্কিলড অ্যাসেসমেন্ট সার্টিফিকেট ও প্রোভিন্সিয়াল নমিনেশন ছাড়া কোনো আবেদন জমা নেয়া হয় না। আবেদনের যোগ্যতা : আইইএলটিএস পরীক্ষায় ন্যূনতম 4.5 (সাড়ে চার) পয়েন্ট, যেকোনো বিষয়ের উপর ডিপ্লোমা…

Read More

আপনিও ঘুরে আসতে পারেন মিরসরাই

আপনিও ঘুরে আসতে পারেন মিরসরাই

চট্রগ্রাম জেলা মিরসরাই উপজেলা সবুজের অরণ্য, ঝরনার স্রোতধারা কলকল শব্দে নেমে যায় সমতলে। নাম না জানা বাঁশবন, বুনোফুল ও ফলের গাছ আপার সৌন্দর্য যে কাউকেই মুগ্ধ করবে। প্রকৃতির অপূর্ব সৃষ্টি মিরসরাইয়ের এই বুনো ঝরনাধারা আর জল প্রপাতগুলো। এরই মধ্যে দেশ-বিদেশে অনেক পর্যটন বলেছেন, মাধবকুণ্ড থেকে দৈর্ঘ্য-প্রস্থসহ পানির লেবেল এবং প্রাকৃতিক বৈচিত্রে এ ঝরনাগুলো কোনো অংশেই কম যায় না । এদের অপরুপ সৌন্দর্য থেকে চোখ ফেরানোর উপায় নেই ।   যাতায়াত: আপনি ঢাকা থেকে বা চট্রগ্রামের…

Read More